হাম হাম জলপ্রপাত

প্রকাশিত ২৬ মার্চ, ২০১৮ | আপডেট: ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০

হাম হাম জলপ্রপাতের অবস্থান

কাঁচের মত স্বচ্ছ পানির আবরণে ঢাকা এক পাহাড়ি ঝরনা রয়েছে সিলেটের মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলায়, রোমাঞ্চকর নয়নাভিরাম "হামহাম" জলপ্রপাত। কমলগঞ্জ শহর থেকে প্রায় ৩৮কিঃমিঃ পূর্ব-দক্ষিণে রাজকান্দি বন রেঞ্জের কুরমা বনবিট এলাকায় এ জলপ্রপাতের অবস্থান। এটি ২০১০ সালে আবিষ্কৃত হয়। 

হাম হাম জলপ্রপাতের  আকর্ষণীয় দিকসমূহ

দীর্ঘ পাহাড়ের আঁকাবাঁকা উঁচু-নিচু পথে অনেক কষ্টে ঘন অরণ্যে এই জলপ্রপাতকে দেখতে প্রতিদিন আগমন ঘটছে হাজার হাজার পর্যটকদের। আপনিও চাইলে ঘুরে আসতে পারেন এখান থেকে। রাতে ক্যাম্পিংও করতে পারেন আর সেই সাথে নিয়ে নিতে পারেন রোমাঞ্চকর এক অনুভূতি।

হাম হাম জলপ্রপাতের  যাতায়াত ব্যবস্থা ও খরচ

ঢাকা থেকে সরাসরি সড়ক ও রেল পথে মৌলভীবাজার যাওয়া যায়। যারা আকাশ পথে মৌলভীবাজার যেতে চান তাদেরকে প্রথমে সিলেট গিয়ে তারপর সেখান থেকে সড়ক বা রেল পথে মৌলভীবাজার আসতে হবে। অন্যন্য রুটের চেয়ে রেলপথে ভ্রমণই সুবিধাজনক। কমলগঞ্জ ও শ্রীমঙ্গল শহর থেকে স্থানীয় মিনিবাস, জীপ, মাইক্রোবাস ও সিএনজি নিয়ে কমলগঞ্জের-কুরমা চেকপোষ্ট পর্যন্ত প্রায় ২৫কিঃ পাকা রাস্তা, বাকী ১৫/২০ কিঃ মিঃ মাটির রাস্তায় পায়ে হেঁটে চম্পা রায় চা বাগানের ভেতর দিয়ে কলাবন বস্তি হয়ে মোকামটিলায় গেলে দেখা পাওয়া যাবে ১৫০ফুট 

উচ্চতা ও ৮০ ফুট প্রস্তের এই হাম হাম জলপ্রপাত। 

ঢাকা- মৌলভীবাজার (ট্রেন): ১৮৫ টাকা থেকে ৫১২ টাকা (নন এসি) আনুমানিক ভাড়া 

ঢাকা- সিলেট(ট্রেন): ১০১৮ টাকা (এসি) আনুমানিক ভাড়া

এছাড়া মৌলভীবাজার থেকে হামহাম পর্যন্ত যাতায়াত খরচ ঐখানের স্থানীয় পরিবহন ব্যাবস্থার খরচের উপর নির্ভর করে। 

হাম হাম জলপ্রপাতের  থাকার  ব্যাবস্থা

হামহাম এ থাকার মত কোন ব্যবস্থা নেই বললে চলে। তবে আপনি শ্রীমঙ্গল শহরে

হোটেল প্লাজা (ফোন নংঃ ০৮৬২৬-৭১৫২৫), টি রিসোর্ট (ফোন নংঃ ০৮৬২৬-৭১২০৭), বি.টি. আর.আই. (ফোন নংঃ ০৮৬২৬-৭১২২৫) ইত্যাদি হোটেলগুলতে থেকে উপভোগ করতে পারেন হামহাম এর অপুরুপ সৌন্দর্য। 

হাম হাম জলপ্রপাতের  সতর্কতা

রাস্তা খুব খানা-খন্দ গর্তে ভর্তি। সুতরাং আপনাকে সাবধানতা অবলম্বন করে হেঁটে যেতে হবে।